পূর্বাহ্ন, সোমবার, ০৪ মার্চ ২০২৪, ২১ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ , সরকার নিবন্ধিত নিউজ পোর্টাল
শিরোনাম :
Logo বগুড়ায় প্রকাশ্যে ব্যবসায়ীকে কুপিয়ে হত্যা Logo কুমিল্লায় এনজিও সংস্থা দিয়া’র কর্মীদের প্রশিক্ষণ সভা অনুষ্ঠিত। Logo বগুড়া আদমদীঘিতে প্রয়াত সাত সাংবাদিক স্বরণে সভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত Logo অতিরিক্ত ডিআইজি হারালেন মেয়েকে স্ত্রীর মৃত্যুর পর বিয়ে করেননি, মেয়ের শোক সইবেন কী করে? Logo জেলা প্রশাসক ফুটবল টুর্নামেন্ট ২০২৪ ইং ফাইনালে লালমনিরহাট পৌরসভা বিজয়ী Logo বগড়া আদমদীঘিতে কৃষকরা ব্যস্ত সময় পার করছে বোরো বীজ রোপণে Logo আধুনিক সেনাবাহিনী গড়ে তুলতে বিভিন্ন পদক্ষেপ নেয়া হচ্ছে: প্রধানমন্ত্রী Logo বেইলি রোডে আগুন: স্ত্রী-সন্তানসহ কাস্টমস কর্মকর্তার মৃত্যু Logo বিপিএলের শিরোপা গেলো বরিশালের ঘরে Logo বাংলাদেশ পুলিশ পদক (বিপিএম) সেবায় ভূষিত হয়েছেন আদমদিঘীর সন্তান অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মাসুদ আলম।

মুন্সীগঞ্জের দুই উপজেলায় দুই অটোরিকশা চালকের মরদেহ উদ্ধার

ডেস্ক: মুন্সীগঞ্জের দুই উপজেলার পৃথক স্থান থেকে দুই অটোচালকের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। সোমবার (২ অক্টোবর) সকাল সাড়ে ৮টার দিকে জেলার সিরাজদিখান উপজেলার বালুচর ইউনিয়নের খাসকান্দি এলাকার এনআরবি নামক এক ইট ভাটার পাশ থেকে অটোচালক নেকবর হোসেন (২২) ও পার্শ্ববর্তী লৌহজং উপজেলার দক্ষিণ হলদিয়ার তিন দোকান এলাকার একটি পুকুর থেকে রশি পেঁচানো অবস্থায় মোস্তাফা (১৮) নামে যুবককের মরদেহ উদ্ধার করা হয়।

তাদের মরদেহ দুটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মুন্সীগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালের মর্গে পাঠনো হয়েছে। মৃত নেকবর উপজেলার চরগুলগুলিয়া গ্রামের মৃত মোহাম্মদ সাজা মিয়ার ছেলে। বিষয়টি নিশ্চিত করে বালুচর ইউনিয়নের ১ নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য মো. ওয়াসিম আহমেদ জানান, রোববার (১ অক্টোবর) বিকালে অটোরিকশা নিয়ে বাড়ি থেকে বের হওয়ার পর নিখোঁজ হয় নেকবর। স্বজনরা রাতে বিভিন্ন স্থানে অনেক খোঁজাখুঁজি করেও তার সন্ধান পায়নি। আজ সকালে গ্রামের একটি ইট ভাটার কাছে মরদেহ পাওয়া যায় ।

ওসি মো. মুজাহিদুল ইসলাম বলেন, আমরা ধারণা করছি হত্যা করে অটো ছিনতাই করেছে দুর্বৃত্তরা। ঘটনাস্থলে আমাদের পুলিশ আছে, বিষয়টি আমরা তদন্ত করে দেখছি। তবে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়ার প্রক্রিয়া চলছে।

এছাড়াও লৌহজংয়ে দোকানে উদ্ধার হওয়া মৃতদেহ মোস্তফা (১৮) লৌহজং উপজেলার মেদিনীমন্ডল ইউনিয়নের মিস্ত্রীপাড়া এলাকার আব্দুল মাদবরের ছেলে। চার ভাই এক বোনের মধ্যে মোস্তফা সবার ছোট। তিনি পেশায় একজন অটোরিক্সা চালক ছিলেন। পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, প্রতিদিনের ন্যায় রোববার (১ অক্টোবর) অটোরিক্সা নিয়ে বের হন। রাতে আর বাসায় ফেরননি। ধারণা করা হচ্ছে, মোস্তফাকে হত্যা করে তার ব্যবহৃত অটোরিক্সাটি ছিনিয়ে নেওয়া হয়েছে।

এ বিষয়ে লৌহজং থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো. খোন্দকার ইমাম হোসেন জানান, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে এসে মরদেহটি উদ্ধার করা হয়েছে। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে এটা একটি হত্যাকাণ্ড। ময়নাতদন্তের জন্য মরদেহটি মুন্সীগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে ।

Tag :
জনপ্রিয় সংবাদ

বগুড়ায় প্রকাশ্যে ব্যবসায়ীকে কুপিয়ে হত্যা

মুন্সীগঞ্জের দুই উপজেলায় দুই অটোরিকশা চালকের মরদেহ উদ্ধার

আপডেট টাইম : ০১:৪৯:২২ অপরাহ্ন, সোমবার, ২ অক্টোবর ২০২৩

ডেস্ক: মুন্সীগঞ্জের দুই উপজেলার পৃথক স্থান থেকে দুই অটোচালকের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। সোমবার (২ অক্টোবর) সকাল সাড়ে ৮টার দিকে জেলার সিরাজদিখান উপজেলার বালুচর ইউনিয়নের খাসকান্দি এলাকার এনআরবি নামক এক ইট ভাটার পাশ থেকে অটোচালক নেকবর হোসেন (২২) ও পার্শ্ববর্তী লৌহজং উপজেলার দক্ষিণ হলদিয়ার তিন দোকান এলাকার একটি পুকুর থেকে রশি পেঁচানো অবস্থায় মোস্তাফা (১৮) নামে যুবককের মরদেহ উদ্ধার করা হয়।

তাদের মরদেহ দুটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মুন্সীগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালের মর্গে পাঠনো হয়েছে। মৃত নেকবর উপজেলার চরগুলগুলিয়া গ্রামের মৃত মোহাম্মদ সাজা মিয়ার ছেলে। বিষয়টি নিশ্চিত করে বালুচর ইউনিয়নের ১ নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য মো. ওয়াসিম আহমেদ জানান, রোববার (১ অক্টোবর) বিকালে অটোরিকশা নিয়ে বাড়ি থেকে বের হওয়ার পর নিখোঁজ হয় নেকবর। স্বজনরা রাতে বিভিন্ন স্থানে অনেক খোঁজাখুঁজি করেও তার সন্ধান পায়নি। আজ সকালে গ্রামের একটি ইট ভাটার কাছে মরদেহ পাওয়া যায় ।

ওসি মো. মুজাহিদুল ইসলাম বলেন, আমরা ধারণা করছি হত্যা করে অটো ছিনতাই করেছে দুর্বৃত্তরা। ঘটনাস্থলে আমাদের পুলিশ আছে, বিষয়টি আমরা তদন্ত করে দেখছি। তবে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়ার প্রক্রিয়া চলছে।

এছাড়াও লৌহজংয়ে দোকানে উদ্ধার হওয়া মৃতদেহ মোস্তফা (১৮) লৌহজং উপজেলার মেদিনীমন্ডল ইউনিয়নের মিস্ত্রীপাড়া এলাকার আব্দুল মাদবরের ছেলে। চার ভাই এক বোনের মধ্যে মোস্তফা সবার ছোট। তিনি পেশায় একজন অটোরিক্সা চালক ছিলেন। পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, প্রতিদিনের ন্যায় রোববার (১ অক্টোবর) অটোরিক্সা নিয়ে বের হন। রাতে আর বাসায় ফেরননি। ধারণা করা হচ্ছে, মোস্তফাকে হত্যা করে তার ব্যবহৃত অটোরিক্সাটি ছিনিয়ে নেওয়া হয়েছে।

এ বিষয়ে লৌহজং থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো. খোন্দকার ইমাম হোসেন জানান, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে এসে মরদেহটি উদ্ধার করা হয়েছে। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে এটা একটি হত্যাকাণ্ড। ময়নাতদন্তের জন্য মরদেহটি মুন্সীগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে ।